লেটেস্ট খবরসাফল্যের খবর শিক্ষার খবরঅফবিটটেক নিউজ

সৌরভ বাদ পড়ার সাথে সাথে ভারতীয় ক্রিকেট নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত নিলো বিসিসিআই

WhatsApp Group   Join Now পাকিস্তান হলো আগামী বছর ‘এশিয়া কাপ’ ক্রিকেটের আয়োজক দেশ। তবে এখন থেকেই প্রতিবেশী দেশের ওপর চাপ দিয়ে রাখল ভারতীয় ক্রিকেট ...

Published on:

WhatsApp Group   Join Now

পাকিস্তান হলো আগামী বছর ‘এশিয়া কাপ’ ক্রিকেটের আয়োজক দেশ। তবে এখন থেকেই প্রতিবেশী দেশের ওপর চাপ দিয়ে রাখল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সচিব জয় শাহ বোর্ডের নতুন প্যানেল ঘোষণা হওয়ার দিনেই জানিয়ে দিলেন যে ভারত পাকিস্তানে খেলতে যাবে না। কোনও নিরপেক্ষ ভেন্যুতে টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে হবে।

“পাকিস্তানের জন্য আমাদের রাষ্ট্রীয় নীতি রয়েছে। ওখানে খেলতে গেলেও কেন্দ্রীয় সরকারের অনুমোদন প্রয়োজন। এশিয়া কাপ আগামী বছর পাকিস্তানে আয়োজিত হওয়ার কথা। তবে এটা নিরপেক্ষ ভেন্যুতে আয়োজন করা হবে।”

২০০৬ সালে শেষবারের মতো ভারতীয় দল রাহুল দ্রাবিড়ের নেতৃত্বে পাকিস্তান সফরে খেলতে গিয়েছিল। রাহুল দ্রাবিড় বর্তমানে জাতীয় দলের হেড কোচ। ভারতীয় দল ২০০৮-এ পাকিস্তানে আয়োজিত এশিয়া কাপে খেলতে যায়নি।

শ্রীলঙ্কায় আর্থিক টালমাটাল অবস্থার জন্য শ্রীলঙ্কা এশিয়া কাপের আয়োজক দেশ হিসেবে নিজেদের দেশের মাটিতে এশিয়া কাপ টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে পারেনি। তারপরে এশিয়া কাপ টুর্নামেন্ট সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয় আরব আমিরশাহিতে।

গত ২০২২ এশিয়া কাপে ভারত-পাকিস্তান দুই দলই দু-বার মুখোমুখি হয়েছিল। একটিতে ভারত যেতে ও অন্যটিতে পাকিস্তান যেতে। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে অনুষ্ঠিত আগামী টি টোয়েন্টি ওয়ার্ল্ড কাপে ভারত বনাম পাকিস্তান লড়াই অক্টোবরের ২৩ তারিখে মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে দেখা যাবে।

মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ড এই দুই দলের ধুন্ধুমার যুদ্ধের সাক্ষী হতে চলেছে। মেলবোর্নে এই দুই দেশের লড়াই দেখতে মাঠে হাজির থাকবে ৯০ হাজারের বেশি দর্শক। এমনটা অনুমান করা যায়।

ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে কোন দ্বিপাক্ষিক সিরিজ হয় না, এই দুই দেশ ক্রিকেট ময়দানে মুখোমুখি হয় শুধু আইসিসি ইভেন্ট এবং এশিয়া কাপে। দুই দেশের রাজনৈতিক টানাপোড়েন ক্রিকেটীয় সম্পর্কেও প্রভাব ফেলেছে।

About Author