লেটেস্ট খবরসাফল্যের খবর শিক্ষার খবরঅফবিটটেক নিউজ

‘রোহিতরা ফাইনাল খেলার যোগ্যই নয়’, ভারতের অধিনায়ক বদলের দাবি শোয়েবের, বাছলেন নতুন নেতা

WhatsApp Group   Join Now ভারত-পাকিস্তানের লড়াই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে না হওয়ায় শোয়েব আখতার হতাশ হয়ে পড়েছেন। তিনি আরও একটা ভারত-পাকিস্তানের লড়াই দেখার আশায় ছিলেন। ...

Published on:

WhatsApp Group   Join Now

ভারত-পাকিস্তানের লড়াই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে না হওয়ায় শোয়েব আখতার হতাশ হয়ে পড়েছেন। তিনি আরও একটা ভারত-পাকিস্তানের লড়াই দেখার আশায় ছিলেন। এতটাই প্রাক্তন জোরে বলার হতাশ যে ভারতের অধিনায়ক বদলের দাবি তুলে দিয়েছিলেন।

সেমিফাইনালে শোয়েব রোহিত শর্মার দলের খেলা দেখে হতাশ। তিনি বলেন, ‘‘ভারতের এই দলের ফাইনাল খেলার যোগ্যতাই নেই।’’ তাকে রোহিতের নেতৃত্বও হতাশ করেছে। তার দাবি হার্দিক পাণ্ড্যর হাতে তুলে দেওয়া হোক টি-টোয়েন্টি দলের অধিনায়কত্ব। শোয়েব বললেন,‘‘নিউজ়িল্যান্ড সফরে হার্দিককে অন্তর্বর্তী অধিনায়ক করা হয়েছে। ওকেই টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে স্থায়ী অধিনায়ক করে দেওয়া উচিত।’’ শোয়েবের মতে অধিনায়ক হার্দিক আইপিএলে নিজের যোগ্যতার প্রমাণ দিয়েছে। তাই আস্থা রাখা যায় ভারতীয় অলরাউন্ডারের উপর। শোয়েবের দাবি ভারত দ্রুত নেতা বদল করার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত না নিলে অনেকটাই দেরি হয়ে যাবে।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে তাকে ভারতের হার হতাশ করেছে ঠিকই। তবে ভারতীয় দলের খেলায় বেশি হতাশ হয়েছেন। শোয়েব নিজের চ্যানেলে বলেছেন, ‘‘ভারতের এই হারটা খুব হতাশজনক। অত্যন্ত খারাপ খেলেছে। ওরা হেরে যাওয়ারই যোগ্য। ফাইনালে ওঠার যোগ্যতাই নেই এই দলের। ভারতের হারটা খুব খারাপ। ওদের বোলিংয়ের দুর্দশা প্রকট হয়ে গিয়েছে। এই ধরনের পরিবেশে দ্রুতগতির জোরে বোলার দরকার হয়। ভারতের এক জনও দ্রুত গতির বোলার নেই।’’

চুপ নিজের ব্যর্থতা নিয়ে, রোহিত চোখের জল মুছে হাড়ের জন্য এক সতীর্থকেই কাঠগড়ায় তুললেন। ১৫ জনের দলে থাকলেও যুজবেন্দ্র চাহাল টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ পান। শোয়েব অবাক হয়েছেন ভারত তাকে ব্যবহার না করায়। পাকিস্তানের প্রাক্তন ক্রিকেটার বললেন, ‘‘জানি না কেন চহালকে একটাও ম্যাচ খেলানো হল না। ভারতের দল নির্বাচন ভুলে ভরা।’’ ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ভারতের পারফরম্যান্স নিয়ে বললেন, ‘‘ভারতের জন্য খুব খারাপ একটা দিন। ওদের মাথা নিচু করে মাঠ ছাড়তে হল। টস হারার পরেই পিছিয়ে পড়ে ভারত। ইংল্যান্ড প্রথম পাঁচ ওভার অনবদ্য ব্যাট করল। ভারত তখনই হাত তুলে দিয়েছে। আশা করেছিলাম ভারত অন্তত লড়াই করবে। মনে হয়েছিল রাউন্ড দ্য উইকেট বল করবে বা বাউন্সার দেওয়ার চেষ্টা করবে। ভারতের ক্রিকেটারদের মধ্যে কোনও আগ্রাসনই দেখলাম না।’’

About Author