বিশ্বকাপ জিততে হলে গাধাকেও বাপ বানাতে হয়! বাবরকে লক্ষ্য করে ওয়াসিম আক্রমের বক্তব্য

২০২২ এর বিশ্বকাপে ফেবারিট দল হিসেবে অস্ট্রেলিয়ায় পা দেওয়া পাকিস্তান সুপার টুয়েলভের স্তর থেকে বিদায় নেওয়ার জায়গায়। ভারতের কাছে প্রথমে হার। তারপর পাকিস্তান দলটি জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দ্বিতীয় হারের ধাক্কা সামলে উঠতে পারেনি এর মধ্যে পাকিস্তানি দলের সাবেক ক্রিকেটাররা নানান দিক থেকে অধিনায়ক বাবর আজমকে খোঁচা দিয়ে যাচ্ছেন।

যেমন পাকিস্তানি দলের সাবেক ক্রিকেটার শোয়েব আখতার বাবর আজমের নেতৃত্ব নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। তিনি বলেছেন বাবর পাকিস্তান দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার যোগ্য নয়। কিংবদন্তি পাকিস্তানি পেসার ওয়াসিম আক্রমও তীর দেগেছেন বাবরের অধিনায়কত্বের উপর। দলের ভালোর জন্য বাবর আজম বোর্ড চেয়ারম্যান কিংবা নির্বাচকদের থেকে যা দরকার আদায় করতে পারে না বলে ইঙ্গিত করেছেন।

ওয়াসিম আক্রম বলেন, ‘এক বছর আগে থেকেই বোর্ডের লোকজন কিংবা আমরা জানি যে, মিডল অর্ডার কিছুটা দুর্বল। ওদিকে শোয়েব মালিক দলের বাইরে। আমি যদি অধিনায়ক হতাম, আমার লক্ষ্য কী হতো? বিশ্বকাপ জেতা? সেজন্য আমার যদি গাধাকে ভাই কিংবা বাপ বানানো লাগে আমি বানাতে প্রস্তুত। কারণ আমার বিশ্বকাপ জিততে হবে।’

ওয়াসিম আরো বলেন, “যদি আমার শোয়েব মালিককে দলে দরকার হয়, আমি বোর্ড চেয়ারম্যান, বোর্ড নির্বাচকদের বলবো, আমার ওই খেলোয়াড় দরকার। তাছাড়া আমি বিশ্বকাপ খেলবো না। কিন্তু এমনটা হয়নি। এটা তো পাড়ার দল নয় যে, আমার চেনা লোকজন খেলবে। আমি অধিনায়ক হলে, মিডল অর্ডারের জন্য সবার আগে মালিককে দলে নিতাম।”

ব্যাট হাতে পাকিস্তানের দুই ওপেনার বাবর আজম ও মোহাম্মদ রিজওয়ান ভালো খেলছিলেন। কিন্তু বিশ্বকাপের মূল পর্বে ভারত ও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দু’জনই ব্যর্থ হয়েছেন। ওই ব্যর্থতা পাকিস্তানের মিডল অর্ডার ব্যাটাররা ঢাকতে পারেনি। শান মাসুদ দুই ম্যাচেই ধীর গতিতে ব্যাটিং করেছেন। মোহাম্মদ নওয়াজ, আসিফ আলীরা দলের হয়ে তাদের কাজ করতে ব্যর্থ হয়েছেন। অথচ বিশ্বকাপের আসর শুরুর আগে বাবর আজম বলেছিলেন, মিডল অর্ডারের ওপর ভরসা আছে। ওরা এর আগে অনেক ম্যাচ জিতিয়েছে।