‘যদি তখন অস্ত্রোপচার না করাতাম, তাহলে আমার…’ অস্ট্রেলিয়া সিরিজের আগে জাদেজা দিলেন এই বয়ান !!

আর ঠিক চারদিন হাতে। বহু প্রতীক্ষিত ভারত-অস্ট্রেলিয়া মহাযুদ্ধ তারপরেই। নাগপুরের বিদর্ভ ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন স্টেডিয়ামে আগামী 9 ফেব্রুয়ারি থেকে বর্ডার গাভাস্কার ট্রফির প্রথম টেস্ট শুরু। ভারত এই ট্রফি জিতেছে ব্যাক-টু-ব্যাক অস্ট্রেলিয়ায় গিয়ে। রোহিতরা হ্যাটট্রিক করবেন এবার জিততে পারলে। অন্যদিকে ভারতের তারকা অলরাউন্ডার রবীন্দ্র জাদেজা জাতীয় দলে পাঁচ মাস পর প্রত্যাবর্তন করলেন। হাঁটুর চোটের কারণে জাদেজার অস্ত্র প্রচার করতে হয়েছিল। বিগত পাঁচ মাস দেশের হয়ে কোন ফরম্যাটেই খেলতে পারেননি।

তিনি ফিট হন বেঙ্গালুরুর জাতীয় ক্রিকেট অ্যাকাডেমিতে নিয়মিত রিহ্যাব করিয়ে। ভারত- অস্ট্রেলিয়া টেস্ট দলে প্রত্যাবর্তন করলেও, তাকে বিসিসিআই শর্ত দিয়েছিল যে, নিজের ফিটনেসের প্রমাণ দিতে হবে চলতি রঞ্জি ট্রফিতে খেলে। তামিলনাড়ুর বিরুদ্ধে সৌরাষ্ট্রের হয়ে তিনি রঞ্জি খেলেন। জাদেজা ৫৩ রানে ৭ উইকেট নিয়ে প্রমাণ করেন যে, তিনি ফিট। তিনি নিজেকে ঝালিয়ে নিচ্ছেন ভারত-অস্ট্রেলিয়া টেস্টের আগে। বিসিসিআইয়ের জন্য অনুশীলনের ফাঁকেই ভিডিওতে জানালেন যে, তার জীবনে বিগত পাঁচ মাস ধরে কী ঝড় বয়ে গিয়েছে।

বিসিসিআইয়ের ভিডিওতে জাদেজা বলেছেন, “আমি অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছিলাম কাম ব্যাক করার জন্য। হাঁটুর সাথে বহুদিন ধরেই লড়াই করছিলাম। অস্ত্রোপচার করা প্রয়োজন ছিল। আমাকে ডাক্তাররাই পরামর্শ দিয়েছিলেন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে অস্ত্রোপচার করার জন্য। তখন যদি অস্ত্রোপচার না করতাম, তাহলে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে আমার খেলার সম্ভাবনা আরো কমে যেত। মনস্থির করার পরেই অস্ত্রোপ্রচার করিয়েছিলাম। আবার ভারতের জার্সি আমি গায়ে চাপিয়েছি। প্রায় পাঁচ মাস পর। এটা ভেবেই আমি রোমাঞ্চিত। আবারো সুযোগ পেলাম আমি ধন্য। সেরে ওঠার পরে মাঠে ফেরার লড়াইতেও চড়াই-উতরাই ছিল। মাঠের বাইরে পাঁচ মাস থাকাটা হতাশা জনক। এনসিএ-তে আমার হাঁটুর জন্য ফিজিও ও ট্রেনাররা প্রচুর সময় দিয়েছেন। এমনকি ওরা শুধু আমার জন্য রবিবার ছুটির দিনেও আসতেন। আশা করছি সবকিছু এখান থেকে ভালই হবে।”

এশিয়া কাপে জাদেজা শেষবার দেশের জার্সিতে হংকংয়ের বিরুদ্ধে মাঠে নেমেছিলেন। দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামের পর তিনি আর মাঠ মুখো হননি। ডান হাঁটুতে চোট পাওয়ার কারণে অস্ত্রোপ্রচার করতে হয়েছে। এরপর থেকে জাতীয় ক্রিকেট অ্যাকাডেমিতে জাদেজার রিহ্যাব হয়েছে। ভারতের হয়ে গত আগস্টে ৩৩ বছরের ক্রিকেটার এশিয়া কাপের প্রথম দুটি ম্যাচ খেলেছিলেন। তার চোট লাগে হংকংয়ের বিরুদ্ধে খেলার সময়। এরপরেই তিনি ছিটকে যান প্রতিযোগিতা থেকে। জাদেজার বদলে দলে নেওয়া হয়েছিল অক্ষর প্যাটেলকে। এতটাই বড় ছিল চোটের আকার যে, তিনি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ থেকেও ছিটকে যান।