টি২০ বিশ্বকাপের জন্য দেশ ছাড়ার আগে ঋদ্ধিমান সাহা কে নিয়ে অবাক করা তথ্য জানালেন কোহলি

কেউ কি কখনো আইসক্রিমের সাথে ডাল ও ভাত খেতে পারেন! এর উত্তর যদি আপনার কাছে না হয়, তাহলে বিরাট কোহলির জবাব শুনে নিন। আসলে এমন এক সদস্য টিম ইন্ডিয়ার মধ্যে ছিলেন যিনি আইসক্রিমের সাথে ডাল-ভাত খেতেন। তা দেখে একটা সময়ে বিরাট কোহলি অবাক হয়েছিলেন। এবার বিরাট কোহলি সেই খেলোয়াড়ের নাম জানালেন।

আসলে টিম ইন্ডিয়া ড্রেসিংরুমের পরিবেশ কেমন এবং অদ্ভুত চালচলনকারী খেলোয়াড় কারা তা জানতে ভারতীয় ক্রিকেট দলের ভক্তরা খুবই কৌতূহলী। ভারতীয় দলের সাজঘর সম্বন্ধে ভক্তদের সামনে ভারতের প্রাক্তন অধিনায়ক ও বর্তমান ব্যাটসম্যান বিরাট কোহলি এমনই একটি গল্প জানিয়েছেন। এমন এক খেলোয়াড়ের কথা বিরাট বলেছেন যে তিনি আইসক্রিম খান ডাল-ভাত খেতে খেতে।

‘ওয়ান এইটকমিউন’ ইউটিউব চ্যানেলে মনীশ পালের সাথে কথা বলতে গিয়ে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে ছন্দে থাকা বিরাট কোহলি ঋদ্ধিমান সাহার অদ্ভুত খাদ্যাভাস সম্পর্কে কথা বলেছেন।

বিরাট কোহলি বললেন, “আমি যদি কাউকে খাওয়ার সময় অনন্য কম্বিনেশন ট্রাই করতে দেখে থাকি,তিনি হলেন ঋদ্ধিমান সাহা। আমি একবার তার প্লেটে লক্ষ্য করেছিলাম, যাতে বাটার চিকেন, রোটি, সালাদ এবং রসগুল্লাও ছিল।”

ঋদ্ধিমান সাহা সম্পর্কে কিং কোহলি আরো বললেন, “আমি দেখেছি যে তিনি রোটি এবং সালাদ দু-তিনবার খেয়েছেন এবং পুরো রসগুল্লাটি গিলেছেন। আমি তাঁকে তাই জিজ্ঞেস করলাম, ‘ঋদ্ধি তুমি কি করছ?সে বলল যে সে সাধারণত এরকমই হয়। অনেকবার আমি তাঁকে ডাল এবং ভাতের সঙ্গে আইসক্রিম খেতে দেখেছি। সে সেগুলি এক সঙ্গে খায়,যেমন দুইবার ভাত এবং তারপর আইসক্রিম।”

বিরাট কোহলি বলেছিলেন যে তার খাওয়ার ব্যাপারে সব থেকে কোন দেশের খাবার খাওয়ার অভিজ্ঞতা খারাপ ছিল? এবং ভালো খাওয়ার অভিজ্ঞতা কোন দেশের ছিল। সে বিষয়েও বিরাট কোহলি নিজের উত্তর জানাতে ভোলেননি। বিরাট কোহলি বাজে খাওয়ারের অভিজ্ঞতার কথা বলতে গিয়ে তুলে ধরেন প্যারিসের প্রসঙ্গ। তিনি প্যারিসে কয়েকদিন আগেই ছুটি কাটাতে গিয়েছিলেন।

সেখানে তার খারাপ অভিজ্ঞতা হয়েছিল খাবারের ক্ষেত্রে এবং বিরাট কোহলি সেটি জানান। একই সাথে তিনি ভুটানে কাটানো দিনগুলি সম্পর্কে বলেন, তার কাছে সেখানে ভালো অভিজ্ঞতা ছিল অর্গানিক সব্জি খাওয়া।