১০.৭৫ কোটির তারকা অলরাউন্ডার KKR-এ! দেশের সেরা তারকাকে নিয়ে বাজার মাতাল নাইটরা

আইপিএলের রিটেন করার ডেডলাইন ১৫ নভেম্বর। তার আগে কেকেআর শিবির রীতিমতো ঘর গুছিয়ে নিতে সক্রিয়। গুজরাট টাইটান্স থেকে ট্রেডিংয়ে লকি ফার্গুসন, আফগান কিপার-ব্যাটার রহমানউল্লা গুড়বাজকে নেওয়ার পর এবার দিল্লি ক্যাপিটালস থেকে কেকেআর তুলে নিতে চলেছে দেশের অন্যতম সেরা তারকা অলরাউন্ড শার্দূল ঠাকুরকে। সরকারিভাবে এখনো শার্দূল ঠাকুরকে কেকেআরের পক্ষ থেকে নেওয়ার কথা জানানো না হলে এমনটাই জানানো হয়েছে ক্রিকইনফোর প্রতিবেদনে।

গত নিলামে, দিল্লি ক্যাপিটালস ১০.৭৫ কোটি টাকা খরচ করে শার্দূল ঠাকুর কিনেছে। একের পর এক মরসুম সিএসকে জার্সিতে দুর্দান্ত খেলার পর বিশাল অর্থ খরচ করতে দ্বিধা করেনি শার্দূলের জন্য দিল্লি।

তবে দলবদলের পর তিনি সেভাবে নিজেকে মেলে ধরতে পারেননি। ওভার পিছু খরচ করেছেন ৯-এর বেশি রান। তার নামের পাশে বল হাতে ১৫ উইকেট। তাই দিল্লি এবার সুপারস্টারকে ছেড়ে দিল। ক্রিকইনফোর প্রতিবেদনে বলা হচ্ছে, পেসার- অলরাউন্ডারকে পাওয়ার জন্য সিএসকে, গুজরাট টাইটান্স এবং পাঞ্জাব কিংস ইচ্ছা প্রকাশ করে। তবে কেকেআরের প্রস্তাবেই দিল্লি রাজি হয়।

গত মরসুমে নিলাম এরপর কেকেআর সেভাবে শক্তিশালী দল গড়তে পারেনি। তবে গতবারের তুলনায় এবার টিম ম্যানেজমেন্ট শক্তিশালী দল গড়তে উদ্যোগী হয়েছে। রীতিমতো বোলিং আক্রমণ ভয় ধরিয়ে দেওয়ার মত। নারিন, বরুণ চক্রবর্তীর মতো স্পিনারদের সাথে এবার উমেশ যাদব, প্যাট কামিন্স, লকি ফার্গুসনদের মত তারকারা কেকেআরে আছেন। কেকেআরের স্ক্রি৫ শার্দূলের যোগদানে যে আরও বাড়লো তাতে কোন সন্দেহ নেই।

এই মুহূর্তে কেকেআরের পার্সে আছে মাত্র ৪৫ লক্ষ টাকা। লকি ফার্গুসন (১০ কোটি) এবং শার্দূল ঠাকুরের (১০.৭৫ কোটি) মত তারকাদের নেওয়ার পর অর্থ বাঁচানোর জন্য কেকেআর রিলিজ করে দিতে পারে বেশ কয়েকজন তারকাদের। এবার গতবারের উদ্ধৃত অর্থের সাথে মিনি নিলামে প্রতিটি ফ্র্যাঞ্চাইজি আরো ৫ কোটি টাকা অতিরিক্ত পার্সে নিয়ে নামতে পারবে।